মঙ্গলবার, 13 নভেম্বর 2018

রশিদকে সামলাতেই ইমরুল ছয়ে খেলেছেন

Written by  মঙ্গলবার, 25 সেপ্টেম্বর 2018 01:50
ফিডব্যাক দিন
(0 votes)

একুশ স্পোর্টস: বিসিবির অনুশীলন ম্যাচের দল থেকে এশিয়া কাপের স্কোয়াড। খুলনা থেকে ঢাকা; দুবাই হয়ে আবু ধাবি। যেভাবে উড়িয়ে আনা হয়েছিল ইমরুল কায়েস ও সৌম্য সরকারকে, আফগানিস্তানের বিপক্ষে অন্তত একজনের একাদশে থাকাটা বিস্ময়কর ছিল না। জায়গা পেলেন ইমরুল। কিন্তু বিস্ময় জাগাল তার ব্যাটিং পজিশন। ওপেনিংয়ে নয়, ছয় নম্বর। সেখানেই খেললেন দারুণ এক ইনিংস। জানা গেল, রশিদ খানকে সামলানোর ভাবনা মাথায় রেখেই ছিল ওই সিদ্ধান্ত।
আগের ম্যাচগুলোয় ওপেনারদের ব্যর্থতার কারণেই মূলত জরুরিভাবে ইমরুল ও সৌম্যকে স্কোয়াডে যোগ করেছে বিসিবি। কিন্তু আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচে দেখা গেল ওপেনার সেই লিটন দাস ও নাজমুল হোসেন শান্তই। আর মূলত যিনি ওপেনার, ওয়ানডে ক্যারিয়ারে আগে কখনোই খেলেননি তিনের নীচে, সেই ইমরুল ছয় নম্বরে! সিদ্ধান্তটি জন্ম দিল প্রবল কৌতুহলের। ছয়ে নেমে ইমরুল খেললেন ক্যারিয়ারের অন্যতম সেরা ইনিংস। ৮৭ রানে ৫ উইকেট হারানো দলকে উদ্ধার করলেন মাহমুদউল্লাহর সঙ্গে ১২৮ রানের রেকর্ড জুটিতে। নিজে অপরাজিত ছিলেন ৭২ রানে। ব্যাট হাতে সাফল্য তার ব্যাটিং পজিশন নিয়ে কৌতুহলের তীব্রতা বাড়িয়েছে আরও। দলের নানা সূত্র থেকে জানা গেছে সিদ্ধান্তের প্রেক্ষাপট। ইমরুল ও সৌম্যকে উড়িয়ে আনা হলেও লিটন ও শান্তকে ওপেনিংয়ে আরও সুযোগ দিতে চেয়েছে দল। যেহেতু লিটন ছিলেন প্রথম পছন্দের দুই ওপেনারের একজন, আর শান্তকে নেওয়া হয়েছিল তামিমের বিকল্প ভাবনায়, তাদের প্রতি যেন ভুল বার্তা না যায়, সেটায় সতর্ক ছিল টিম ম্যানেজমেন্ট। বাড়তি দুজনকে আনা হলেও তাই কোচ-অধিনায়কসহ টিম ম্যানেজমেন্ট আস্থা রাখে লিটন-শান্তর ওপরই। এরপরও একাদশে ইমরুলের জায়গা দিয়ে ছয়ে খেলানোর ভাবনাটি এসেছে মূলত মাশরাফি বিন মুর্তজার মাথা থেকে। টিম ম্যানেজমেন্টের বাকিরা খুব একটা নিশ্চিত ছিলেন না চমকপ্রদ এই ভাবনার কার্যকারিতা নিয়ে। তবে অধিনায়কের যুক্তি ছিল, বিপিএলে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের নেটে রশিদ খানকে অনেক খেলেছেন ইমরুল। যথেষ্ট অভিজ্ঞও তিনি। অভিজ্ঞতা দিয়েই রশিদের ধার কমানোর ভাবনা ছিল। বাঁহাতিদের বিপক্ষে রশিদ তুলনামূলকভাবে একটু কম স্বস্তিতে বল করেন। সেটিও ছিল অধিনায়কের পরিকল্পনায়। অভিজ্ঞ ও বাঁহাতি, রশিদকে সামলাতে এই দুই ছিল মূল বিবেচ্য। সাধারণত রশিদকে যেহেতু পঞ্চম বা ষষ্ঠ বোলার হিসেবে আক্রমণে আনা হয়, মাশরাফি তাই পাঁচে খেলানোর সিদ্ধান্ত নেন সাকিবকে, ছয়ে ইমরুল। মাহমুদউল্লাহর মতো অভিজ্ঞ একজনকে সাতে খেলানোর সিদ্ধান্ত তার জন্য একটু কঠিন ছিল বটে। তবে দল সূত্রে জানা গেছে, দলের কম্বিনেশনের স্বার্থে সেটি ইতিবাচকভাবেই মেনে নেন মাহমুদউল্লাহ। সাকিব পাঁচে নামায় ফাঁকা হয়ে যায় তিন নম্বর পজিশন। এখানে টিম ম্যানেজমেন্ট ভেবেছে মুজিব উর রহমানকে সামলানোর উপায়। এই রহস্য স্পিনার বল করেন নতুন বলে। ওপেনিংয়ে লিটন তো ছিলেনই, তিনে উঠিয়ে আনা হয় মোহাম্মদ মিঠুনকে আর চারে আগের মতোই মুশফিকুর রহিম। এই তিন ডানহাতির দায়িত্ব পড়ে মুজিবকে সামলানো। পরিকল্পনা সব পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে পূরণ হয়নি অবশ্যই। একপর্যায়ে ব্যাটিংয়ে ধুঁকছিল বাংলাদেশ। তবে সেই দুর্দশা ছিল মূলত থিতু হওয়ার পরও লিটনের বাজে শট আর সাকিব ও মুশফিকের রান আউটের কারণে। মূল যে রণপরিকল্পনা, রশিদ ও মুজিবকে খুব বেশি উইকেট না দেওয়া, সেখানে দল সফল অনেকটাই। দুজনই পেয়েছেন কেবল একটি করে উইকেট। রশিদকে কোনো অস্বস্তি ছাড়াই খেলেছেন ইমরুল। গত জুনে দেরাদুনে টি-টোয়েন্টি সিরিজের পর এবার এশিয়া কাপে দুই দলের প্রথম লড়াইয়েও রশিদকে ঠিক ভাবে পড়তে পারছিলেন না মাহমুদউল্লাহ। তবে এই লেগ স্পিনারকে ইমরুলের সামলানো দেখে ও জুটি গড়ে ওঠায় আত্মবিশ্বাসী হয়ে ওঠেন মাহমুদউল্লাহও। রশিদকেই মারেন দুটি ছক্কা। পরিকল্পনা কাজে না লাগলে প্রবল সমালোচনার শঙ্কা ছিল। কিন্তু সিদ্ধান্তের পেছনে যুক্তিগুলোই ফুটিয়ে তুলছে ভাবনার ওজন। শেষ পর্যন্ত দলের জয়ের ভিত গড়ে দিয়েছে অধিনায়কের ওই সিদ্ধান্ত আর ক্রিকেট বোধের গভীরতা।



২৫-০৯-২০১৮

25-09-2018

 

পড়া হয়েছে 2 বার

আপনার মতামত জানান...

আপনার মতামত জানানোর জন্য ধন্যবাদ

সোস্যাল নেটওয়ার্ক

খবরের ভিডিও

অনলাইন জরিপ

দুদক চেয়ারম্যান বলেছেন, দুর্নীতির মাধ্যমে অর্জিত অর্থ জঙ্গিবাদের পেছনে ব্যয় হচ্ছে। আপনিও কি তা-ই মনে করেন?
  • Votes: (0%)
  • Votes: (0%)
  • Votes: (0%)
Total Votes:
First Vote:
Last Vote:

হাট-বাজার

আঠারো মাইল পশুর হাট - ডুমুরিয়া, খুলনা, বাংলাদেশ

বিস্তারিত দেখুন

পুরনো খবর

প্রধান সম্পাদক : আতিয়ার পারভেজ || সম্পাদক ও প্রকাশক : মনোয়ারা জাহান || ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: শাহীন ইসলাম সাঈদ।
বার্তা, সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ২৫, স্যার ইকবাল রোড, পিকচার প্যালেস মোড়, গোল্ডেন কিং ভবন, খুলনা।
সম্পাদক কর্তৃক দেশ বাংলা প্রিন্টার্স, ৫৮, সিমেট্রি রোড, খুলনা হতে মুদ্রিত ও ১০০, খানজাহান আলী রোড থেকে প্রকাশিত।
যোগাযোগঃ সম্পাদক : ০১৭৫৫-২২৪৪০০, বার্তা কক্ষ : ০১৭৮৭-০৫৫৫৫৫, বিজ্ঞাপন : ০১৭৫৫-১১১৮৮৮
ইমেইল : newsamarekush@gmail.com || ওয়েব: amarekush.com