মঙ্গলবার, 13 নভেম্বর 2018

আজকের পত্রিকা

আজকের বিভিন্ন পাতার সর্বশেষ সংবাদ জানতে আমাদের সাথে থাকুন। সবার আগে সর্বশেষ সংবাদ আপনার কাছে পৌঁছে দেয়াই আমাদের মুল লক্ষ্য। 

প্রথম পাতার খবর

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন.যশোর-০৬ কেশবপুর আসনে জোট-মহাজোটের মনোনয়ন প্রত্যাশীর সংখ্যা-১৪

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন.যশোর-০৬ কেশবপুর আসনে জোট-মহাজোটের মনোনয়ন প্রত্যাশীর সংখ্যা-১৪

শহিদুল ইসলাম ঃ চলতি বছরের ডিসেম্বর মাসের শেষ সপ্তাহে বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ ...

MORE

দ্বিতীয় পাতার খবর

বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা ভাল থাকলে দেশ ভাল থাকবে -শেখ হারুনুর রশীদ

বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা ভাল থাকলে দেশ ভাল থাকবে -শেখ হারুনুর রশীদ

খবর বিজ্ঞপ্তি ঃ খুলনা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শেখ হার ...

MORE

জয়ের নায়ক মুস্তাফিজ: মাহমুদউল্লাহ

Written by মঙ্গলবার, 25 সেপ্টেম্বর 2018 02:15

একুশ স্পোর্টস: বিপর্যয় থেকে দলকে উদ্ধার করা দুর্দান্ত ইনিংস। গুরুত্বপূর্ণ একটি উইকেট। একটি দারুণ ক্যাচ। সব মিলিয়ে ম্যান অব দা ম্যাচ মাহমুদউল্লাহ। তবে তার কাছে আফগানিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশের জয়ের মূল কৃতিত্ব শেষ ওভারের নায়ক মুস্তাফিজুর রহমানের। শেষ ওভারে আফগানিস্তানের প্রয়োজন ছিল ৮ রান। মুস্তাফিজের করা ওভার থেকে এসেছে ৪ রান। এশিয়া কাপের সুপার ফোরের মহাগুরুত্বপূর্ণ ম্যাচটি বাংলাদেশ জিতে নিয়েছে ৩ রানে। শেষ ওভারের রুদ্ধশ্বাস উত্তেজনায় অসাধারণ বোলিংয়ে ভাগ্য গড়ে দিয়েছেন মুস্তাফিজ। তবে সেটির প্রেক্ষাপট রচনায় বড় ভূমিকা মাহমুদউল্লাহর। বাংলাদেশ ৮৭ রানে ৫ উইকেট হারানোর পর গিয়েছিলেন উইকেটে। সেখান থেকে ইমরুল কায়েসের সঙ্গে ১২৮ রানের জুটিতে দলকে নিয়ে গেছেন লড়াই করার মতো স্কোরের স্বস্তিতে। পরে বল হাতে ফিরিয়েছেন প্রতিপক্ষের ফিফটি করা ওপেনার মোহাম্মদ শাহজাদকে। আবার যখন গড়ে উঠেছে জুটি, মাশরাফি মুর্তজার বলে নিয়েছেন আসগর আফগানের ক্যাচ। সব মিলিয়ে ম্যান অব দা ম্যাচের বিবেচনায় তার প্রতিদ্বন্দ্বী ছিল না। মাহমুদউল্লাহ যদিও ম্যাচের গুরুত্বপূর্ণ সময় মনে করেন শেষ ওভারটিকেই। ম্যাচ শেষে তিনি এগিয়ে রাখলেন মুস্তাফিজের বোলিংকে। “টার্নিং পয়েন্ট আমি মুস্তাফিজের বোলিংকেই বলব আমি। আমাদের জুটি হয়ত গুরুত্বপূর্ণ ছিল, কিন্তু ৬ বলে ৮ রান আটকানো সহজ নয়। মুস্তাফিজ যেভাবে বোলিং করেছে, সেটা ছিল অসাধারণ।” শুধু শেষ ওভারে দলকে জেতানো বোলিংই নয়, মাহমুদউল্লাহ মুস্তাফিজের বোলিংয়ে মুগ্ধ পারিপার্শ্বিকতার কারণেও। প্রচ- গরমে পায়ে ক্র্যাম্প করায় ঠিকভাবে বোলিং করতে পারছিলেন না মুস্তাফিজ। রান আপসহ বোলিংয়ে দিতে পারছিলেন না পুরোটা। ইয়র্কার তো পারছিলেনই না। এরপরও নিজেকে উজার করে দিয়েছেন যতটা সম্ভব। নিজের সঙ্গে সেই লড়াইয়ের কারণেই মুস্তাফিজকে বাড়তি কৃতিত্ব দিচ্ছেন মাহমুদউল্লাহ। “ওরা ভালো ক্রিকেট খেলেছে, আমরাও খেলেছি। আমরা শেষ পর্যন্ত স্নায়ু ধরে রাখতে পেরেছি, মুস্তাফিজের অসাধারণ শেষ ওভারের জন্য। আমরা বারবার ওকে এজন্যই কৃতিত্ব দিচ্ছি যে ও ক্র্যাম্প করছিল, স্ট্রেচিং করছিল। আমার মনে হয়, ও পুরো রান আপে বল করছিল না। শর্ট করে নিয়েছিল একটু। এজন্য ওকে কৃতিত্ব দিচ্ছি এত বেশি।”

২৫-০৯-২০১৮

25-09-2018

 

মনিরামপুর প্রতিনিধি ঃ মনিরামপুরে বিপুল পরিমান অবৈধ ভারতীয় মালামালসহ জননী কুরিয়ার সার্ভিসের একটি কাভার্ড ভ্যানসহ ৩ জনকে আটক করে পুলিশ। তবে অভিযোগ রয়েছে অবৈধ মালামাল জব্দ করা হলেও গভীর রাতে দেন-দরবারে কাভার্ড ভ্যান, চালক, হেলপার সহ তিনজনকে ছেড়ে দেয়া হয়। তবে দেন দরবারের  অভিযোগ অস্বীকার করে পুলিশের দাবি ২ ব্যক্তির নামে মামলা করা হয়েছে। জানাযায়, মঙ্গলবার রাত ৮ টার দিকে রাজগঞ্জ সড়ক হয়ে জননী কুরিয়ার সার্ভিসের ঢাকা মেট্রো-ট-১৬-১৬৩৩ নম্বরধারি কাভার্ডভ্যানটিতে বিপুল পরিমান ভারতীয় অবৈধ মালামাল বোঝাই করে মনিরামপুর আসছিল। কাভার্ড ভ্যানটি সিরাজগঞ্জ হয়ে ঢাকা যাওয়ার কথা ছিল বলে একটি সূত্র জানায়। ওই কাভার্ড ভ্যানে অবৈধ ভারতীয় মালামাল ছিল এমন গোঁপন সংবাদের ভিত্তিতে ভ্যানটি আটকের জন্য থানার এসআই আকতারুল ইসলাম ও আবু সুফিয়ানের নেতৃত্বে একদল পুলিশ রাত আটটার দিকে পৌরশহরের আকরাম মোড় ওঁৎ পেতে থাকে। এর কিছুক্ষন পর কাভার্ড ভ্যানটি মোড় অতিক্রম করার সময় তাকে থামতে সিগন্যাল দেয়া হয়। কিন্তু চালক তাতে কর্ণপাত না করে গতিবেগ বাড়িয়ে দ্রুত পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এরপর পুলিশ ধাওয়া করে যশোর-সাতক্ষীরা মহাসড়কের মনিরামপুর সরকারি কলেজের সামনে কাভার্ড ভ্যানটি আটক করে থানায় নিয়ে আসে। থানায় এনে কাভার্ড ভ্যান থেকে বিভিন্ন যানবাহন ও পানির পাম্পের মূল্যবান যন্ত্রাংশ, মেডিকেলের বই, চিকিৎসা সংক্রান্তসহ ৩৬ রকমের মূল্যবান সরঞ্জাম উদ্ধার হয়। জানাযায়, জব্দকৃত মালামালের প্রেরক ছিলেন সাতক্ষীরার মামুন অর রশিদ। মালামাল গুলো যাওয়ার কথা ছিলো ঢাকার পল্টনের সেলিম হোসেনের কাছে। তবে বৈধ কাগজপত্র না থাকায় অবৈধ মালামাল জব্দ দেখিয়ে তাদের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। বুধবার রাতে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত জব্দকৃত অবৈধ মালামালের সিজার লিস্ট প্রস্তুত হয়নি বলে থানার এসআই আক্তারুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান। এদিকে গভীর রাতে দেন-দরবারে অবৈধ মালামাল বহনকারি গাড়িসহ চালক, হেলাপার ও অপর একজনকে ছেড়ে দেওয়ায় নানা প্রশ্নের জন্ম দিয়েছে। এ ব্যাপারে এসআই আক্তারুল ইসলাম বলেন, সহকারি পুলিশ (মনিরামপুর সার্কেল ) সুপার রাকিবুল হাসানের নেতৃত্বে অভিযানটি পরিচালিত হয়। এ ব্যাপারে তিনিই ভাল বলতে পারবেন। জানতে চাইলে রাকিবুল হাসান বলেন, থানার সংশ্লিষ্ট অফিসার ইনচার্জ অবৈধ মালামাল জব্দ করে কাভার্ড ভ্যানসহ চালক, হেলপার ও অপর একজনকে কুরিয়র সার্ভিসের ম্যানেজার (যশোর) হাবিবুর রহমানের জিম্মায় ছেড়ে দেন। থানার ওসি মোকাররম হোসেন মালামাল আটকের কথা স্বীকার করে বলেন, দেন-দরবারের বিষয়টি সত্য না। তিনি দাবি করেন, অবৈধ মালামাল জব্দের পর ২ জনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।

তথ্যবিবরণী ঃ হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি ও স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর ৪৩তম শাহাদত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস-২০১৮ পালন উপলক্ষে খুলনায় দুই দিনব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। ১৪ আগস্ট দিবসের তাৎপর্য তুলে খুলনা শিশু একাডেমিতে বঙ্গবন্ধুর জীবন ও কর্মভিত্তিক কবিতা আবৃত্তি ও চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা এবং বঙ্গবন্ধুর ওপর ‘চিরঞ্জীব বঙ্গবন্ধু’ প্রামাণ্য চিত্র প্রদর্শন করা হবে। খুলনা জিলা স্কুলে  সকাল ১১টায় রচনা প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে।  ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবসে সূর্যোদয়ের সাথে সাথে সকল সরকারি, আধাসরকারি, স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠান, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও বেসরকারি ভবনসমূহে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখা এবং সূর্যাস্তের পূর্বে নামানো হবে।  সকাল সাড়ে আটটায় খুলনা নিউমার্কেট চত্ত্বর হতে শোকর‌্যালি শুরু হয়ে বাংলাদেশ বেতারে গিয়ে জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণের মধ্য দিয়ে শেষ হবে। ঐদিন সকাল সাড়ে নয়টায় খুলনা অফিসার্স ক্লাব মিলনায়তনে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হবে। পরে একই স্থানে শিশু একাডেমির চিত্রাংকন, কবিতা আবৃত্তি ও রচনা প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের মাঝে পুরষ্কার এবং যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের ঋণ বিতরণ করা হবে।  এছাড়া ১৫ আগস্ট সকাল সাড়ে ১০টায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আলোচনা সভা, কবিতা পাঠ, রচনা ও চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা,  হামদ ও নাত এবং মিলাদ মাহফিল ও মোনাজাতের আয়োজন করা হবে। প্রতœতত্ত্ব অধিদপ্তর খুলনা বিভাগীয় জাদুঘর অটিস্টিক শিশুদের জন্য দিনব্যাপী প্রামান্য চিত্র প্রদর্শন এবং মাসব্যাপী শোকবহ আগস্ট শীর্ষক আলোকচিত্র প্রদর্শন করবে। উমেশচন্দ্র পাবলিক লাইব্রেরিতে সকাল নয়টা হতে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত মুক্তিযুদ্ধ ও বঙ্গবন্ধুর কর্মজীবনভিত্তিক  পুস্তক প্রদর্শন করা হবে। বাদ জোহর কালেক্টরেট জামে মসজিদ, পুলিশ লাইন মসজিদ, ও টাউন জামে মসজিদে মিলাদ মাহফিল ও মোনাজাত এবং সুবিধামত সময়ে অন্যান্য মসজিদ, মন্দির, গীর্জা ও অন্যান্য ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে বিশেষ মোনাজাত ও প্রার্থনা করা হবে।  খুলনা জেলা তথ্য অফিসের উদ্যোগে শহীদ হাদিস পার্কে সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় এবং রাত আটটায় বঙ্গবন্ধুর ওপর নির্মিত ‘ চিরঞ্জীব বঙ্গবন্ধু’ প্রামাণ্য চিত্র প্রদর্শন করা হবে। ইসলামিক ফাউন্ডেশনে আলোচনা সভা, হামদ ও নাত, মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে। জেলা শিল্পকলা একাডেমি স্বরচিত কবিতা পাঠ ও চিত্রাংকন প্রতিযোগিতায় আয়োজন করবে। এছাড়া জাতীয় শোক দিবসে স্থানীয় সংবাদপত্রসমূহে নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় বিশেষ সংখ্যা বা ক্রোড়পত্র প্রকাশ এবং বাংলাদেশ বেতার খুলনা  বিশেষ অনুষ্ঠানমালা প্রচার করবে। গত ৩০ জুলাই খুলনা জেলা প্রশাসক মোঃ আমিন উল আহসানের সভাপতিত্বে তাঁর সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত প্রস্তুতিমূলক সভায় এ সকল সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।  

আজকের পত্রিকা (প্রিন্ট ভার্সন)

প্রধান সম্পাদক : আতিয়ার পারভেজ || সম্পাদক ও প্রকাশক : মনোয়ারা জাহান || ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : মো: শাহীন ইসলাম সাঈদ।
বার্তা, সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ২৫, স্যার ইকবাল রোড, পিকচার প্যালেস মোড়, গোল্ডেন কিং ভবন, খুলনা।
সম্পাদক কর্তৃক দেশ বাংলা প্রিন্টার্স, ৫৮, সিমেট্রি রোড, খুলনা হতে মুদ্রিত ও ১০০, খানজাহান আলী রোড থেকে প্রকাশিত।
যোগাযোগঃ সম্পাদক : ০১৭৫৫-২২৪৪০০, বার্তা কক্ষ : ০১৭৮৭-০৫৫৫৫৫, বিজ্ঞাপন : ০১৭৫৫-১১১৮৮৮
ইমেইল : newsamarekush@gmail.com || ওয়েব: amarekush.com